1. amarcampus24@gmail.com : admin2020 :
১ বছরে ফেনীতে ৬৪ ধর্ষণ ও যৌন নিপীড়ন - AmarCampus24
শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ০৪:৫০ পূর্বাহ্ন

১ বছরে ফেনীতে ৬৪ ধর্ষণ ও যৌন নিপীড়ন

আমারক্যাম্পাস ২৪ ডটকম
  • আপডেট টাইম :: রবিবার, ১৯ জানুয়ারী, ২০২০

ফেনীর সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল (ডিগ্রি) মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদদৌলার যৌন হয়রানির শিকার হয়েছিলেন ছাত্রী নুসরাত জাহান। এ ঘটনায় তাঁর মা শিরিনা আক্তার বাদী হয়ে মামলা করলে গ্রেপ্তার হন অধ্যক্ষ। মামলা তুলে না নেওয়ায় গত ৬ এপ্রিল মাদ্রাসার প্রশাসনিক ভবনের ছাদে নুসরাতের শরীরে আগুন লাগিয়ে দেন দুর্বৃত্তরা। ১০ এপ্রিল তাঁর মৃত্যু হয়, যা দেশব্যাপী আলোড়ন তোলে।

এ ঘটনার মতো ফেনীতে গত এক বছরে অন্তত ৬৪টি যৌন নিপীড়ন ও ধর্ষণের ঘটনার অভিযোগে মামলা হয়েছে। এর মধ্যে ধর্ষণের ঘটনায় ৩৭টি ও যৌন নিপীড়নে ২৬টি মামলা হয়েছে। আর যৌতুকের জন্য খুনের মামলা হয়েছে একটি। ফেনীর বিভিন্ন থানায় করা মামলা সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

সব ঘটনায় মামলা হলে এ সংখ্যা অনেক বেশি হতো বলে মনে করেন স্থানীয় মানবাধিকারকর্মীরা। তাঁদের মতে, সামাজিক অবক্ষয়, নৈতিক ও রুচিবোধের অধঃপতন, সংস্কৃতির নেতিবাচক প্রভাব এবং মুঠোফোনে অবাধ পর্নোগ্রাফির বিস্তারসহ বিভিন্ন কারণে ধর্ষণ ও যৌন নিপীড়নের ঘটনা বেড়ে চলছে। এ ছাড়া মাদকের বিস্তারও অন্যতম কারণ বলে মনে করেন তাঁরা।

বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের তথ্য অনুযায়ী, গত বছর সারা দেশে ১ হাজার ৭০৩ জন নারী ও শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন ২৩৭ জন। ধর্ষণের পর হত্যা করা হয় ৭৭ জনকে। ধর্ষণের ঘটনায় আত্মহত্যা করেছেন ১৯ জন। ২৪৫ জনকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়।
নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মোট ১২৯টি মামলায় ৩০৫ জনকে আসামি করা হয়েছে এবং আইন প্রয়োগকারী সংস্থা ২২২ জন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে।

ফেনী পুলিশ সুপার খোন্দকার নুরুন্নবী জানান, ফেনীতে নারী ও শিশু নির্যাতনের ঘটনায় থানায় মামলা, জিডিসহ অভিযোগ পেলেই আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তাৎক্ষণিকভাবে তৎপর হন।

 

 

চট্টগ্রাম/আমারক্যাম্পাস

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর